নির্বাচনে আইভীর বিরোধিতার জন্য শামীম ওসমান এখন জামায়াত বিএনপির বন্ধু

5451

নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টিফোর ডটকম: এনসিসি নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন থেকে আইভীকে বঞ্চিত করতে শামীম ওসমানের সবরকম চেষ্টাই ব্যার্থ হয়েছে। শুধু আইভীর বিরোধিতার কারনেই আলী আহম্মদ চুনক ও নাজিমদ্দিন মাহামুদের পৌর নির্বাচনের মতো নিজ এলাকা থেকে আনোয়ার হোসেনকে প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করানোর ছক একেছিলেন শামীম ওসমান এমন মতামত আওয়ামীরীগের তৃনমূল নেতাকর্মীদের।
মেয়র আইভী মনোনয়ন ঘোষনা হওয়ার পরে শুক্রবার রাতে নগীর ২নং রেল হেট এাকায় উচ্ছসিত নেতাকর্মীরা তাদের প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে এসব কথাই প্রকাশ করেছেন।
আওয়ামীলীগের তৃনমূল নেতাকর্মীরা বলেছেন, সবশেষে এখন নির্বাচনে আইভীর বিরোধিতা করা জন্য শামীম ওসমানকে জামায়াত বিএনপির সহচর হওয়া ছাড়া আর কোন উপায় নেই। শামীম ওসমান প্রধানমন্ত্রীকে মা সম্বোধন করলেও তিনি সবসময় মায়ের অবাধ্য সন্তান হিসেবেই নিজেকে প্রমান করেছেন। এতদিন আইভীকে জামায়াত বিএনপি’র দোসর বলে অপপ্রচার চালিয়েছেন, অথচ নির্বাচনে আইভীর বিরোধিতা করতে শামীম ওসমান গোপনে জামায়াত বিএনপির সাথে একত্রিত হয়ে ষড়যন্ত্রের ছক আকছেন। নারায়ণগঞ্জের মানুষ জনপ্রতিনিধির উন্নয়ন কাজে বিশ্বাসী। আর মেয়র আইভী সে উন্নয়ন করে সাধারন মানুষের আস্তা কুড়িয়েছেন। আর শামীম নিজের ৪-আসন এলাকার মেতন উল্লেখ যোগ্য উন্নয়ন না করে আইভী ও ত্বকী হত্যা নিয়ে সময় কাটিয়ে দিয়েছেন। সম্প্রতি শামীম ওসমান তার বিপুল জনতার জনসভায় বলেছিলেন দল নেতা প্রাধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যাকে মনোয়ন দিবেন আমরা তার পক্ষেই কাজ করবো। দল যদি আনোয়ার হোনেরকে মনোয়ন দেয় তাহলে আল্লাহ সোবাহানা তালাকে সাক্ষী রেখে বলছি আমি ও আমার সকল নেকাকর্মী আনোয়ার ভাইয়ে জন্য কাজ করবে। এখন প্রধানন্ত্রী শেখ হাসিনা ও নির্বাচন বিষয়ক বোর্ড মেয়র আইভীকে মনোয়ন দেয়ায় শামীম ওসমান সর্বশেষ দরীয় সিদ্ধান্ত মেনে নিয়ে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী মেয়র আইভীর পক্ষে কার করবেন কিনা এটাই দেখার বিষয়। ###